টাঙ্গাইলে ছেলেধরা সন্দেহে তিনজনকে গণপিটুনি

টাঙ্গাইলে ছেলে ধরা সন্দেহে তিনজনকে গণপিটুনি দেয়ার ঘটনা ঘটেছে। শহরের শান্তিকুঞ্জ মোড়, সদর উপজেলার কান্দিলা ও কালিহাতি উপজেলার সয়া পালিমা গ্রামে পৃথক এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় দুইজন কে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তবে গনপিটুনির শিকার এক জনের পরিচয় পাওয়া গেছে। তার নাম
আকাশ (৪২)। সে গাজীপুরের জয়দেবপুর উপজেলার মৃত আব্দুর রহমানের ছেলে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ জানায়, রোববার সকালে সদর উপজেলার গালা ইউনিয়নের কান্দিলা বাজারে ছেলে ধরা সন্দেহে একজনকে গনপিটুনি দেয়া হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে মারাত্বক আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে। এদিকে আজ দুপুরের দিকে গনপিটুনির শিকার হন অজ্ঞাত এক যুবক। তাকেও পুলিশ উদ্ধার করে কালিহাতি থানা স্বাস্থ্য হাসপাতালে ভর্তি করে। এছাড়াও গতরাত ১১টার দিকে শহরের শান্তিকুঞ্জ মোড় এলাকা থেকে একজনকে উদ্ধার করে। তবে পুলিশের সন্দেহ সে মানসিক রোগি।

এ ব্যপারে টাঙ্গাইল সদর থানার পুলিশ পরিদর্শক (ইন্টিলিজেন্ট এন্ড কমিউনিটি পুলিশিং) মো. সালাউদ্দিন বলেন, ছেলে ধরা সন্দেহে যারা আক্রান্ত হচ্ছে তারা প্রকৃত অপরাধি কিনা তদন্তের আগে বলা যাবে না। এ ব্যপারে গনসচেতনতা বাড়াতে শহরে মাইকিং করা হবে বলেও জানান তিনি। আইন নিজের হাতে তুলে না নিয়ে পুলিশকে খবর দেয়ার জন্য বলে পুলিশের এই কর্মকর্তা।

শর্টলিংকঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।