রৌমারীতে অদ্ভুত শিশু জন্ম

কুড়িগ্রামের রৌমারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নাক বিহীন কপালে চোখ ওয়ালা এক অদ্ভুত কন্যা সন্তানের জন্ম দিয়েছে নিশি আক্তার নামে এক প্রসুতি। শিশুটির জন্মের আধা ঘন্টা পর মৃত্যু হয়েছে।

শনিবার বিকেল সাড়ে টার দিকে কুড়িগ্রামের রৌমারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে এই অদ্ভুত শিশুটির জন্ম হয়।
রৌমারী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সুত্রে জানায়, শনিবার সকালে প্রসব বেদনা নিয়ে রৌমারী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হয় রৌমারী সদর ইউনিয়নের নটানপাড়া গ্রামের আসাদুজ্জামানের স্ত্রী নিশি আক্তার। পরে বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে নিশি আক্তার একটি কন্যা সন্তানের জন্ম দিলে দেখা যায় শিশুটির নাক নেই এবং চোখ দুটি পাশাপাশি কপালের মধ্যে। পরে জন্মের আধা ঘন্টা পর শিশুটির মৃত্যু হয়।

এই শিশু জন্মের খবর ছড়িয়ে পড়লে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে শিশুটিকে এক নজর দেখার জন্য ভীড় জমায় উৎসুক জনতা।
এলাকাবাসী জানায়, দেড় বছর আগে নিশি আক্তারের বিয়ে হয় আসাদুজ্জামানের। এটি তাদের প্রথম সন্তান।
রৌমারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক অনুপ কুমার বিশ্বাস জানান, গর্ভ কালীন সময়ে ফলিক এসিড নামক টেবলেট না খাওয়ায় শিশুটির এমএম সেফালী রোগে আক্রান্ত হয়েছিল।

শর্টলিংকঃ

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।